ট্রাকের ধাক্কায় প্রাণ গেল বাবা-মেয়ের, মা হাসপাতালে

পাবনা সদর উপজেলায় ট্রাকের ধাক্কায় মোটরসাইকেল আরোহী বাবা আলমগীর হোসেন (৩৬) ও মেয়ে সিনহা খাতুন (৬) নিহত হয়েছেন। গুরুতর আহত হয়ে মা নাসরিন আক্তার জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

শুক্রবার (২ এপ্রিল) সকাল সাড়ে ১০টার দিকে সদর উপজেলার চরতারাপুর ইউনিয়নের তারাবাড়িয়া বাজারে এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহত আলমগীর সদরের দোগাছি ইউনিয়নের চরআশুতোষপুর এলাকার ছলিম মোল্লার ছেলে। পেশায় সে একজন কৃষক ছিল।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, শুক্রবার সকালে পাবনা- সুজানগর রোড হয়ে পরিবারসহ মোটরসাইকেল যোগে শ্বশুরবাড়ি মানিকগঞ্জে যাচ্ছিল। পথে মধ্যে তারাবাড়িয়া বাজারে রাস্তার এক পাশে মোটরসাইকেল দাঁড় করিয়ে মোবাইলে কথা বলতেছিল। কথা বলা অবস্থায় বালুবাহী ট্রাক এসে পেছন থেকে ধাক্কা দিলে ঘটনাস্থলেই প্রাণ হারান বাবা ও মেয়ে। এ সময় মা গুরুতর আহত হন।

স্থানীয়রা আরো জানান, এর আগেও সুজানগর উপজেলার পদ্মা নদীর বিভিন্ন স্থান থেকে অবৈধভাবে উত্তোলনকৃত বালু পরিবহনকারী ট্রাকে একাধিক প্রাণহানির ঘটনা ঘটায়।

পাবনা সদর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নাসিম আহমেদ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, মরদেহ উদ্ধারের জন্য ঘটনাস্থলে পুলিশের ফোর্স পাঠিয়েছি। ট্রাকের চালক পালিয়ে যাওয়ায় তাকে আটক করা সম্ভবর হয়নি, তবে ট্রাক আটক করা হয়েছে।