পুরুষরাই বেশি লিঙ্গ বৈষম্যের শিকার! বলছে গবেষণা!


বিশ্বব্যাপী নারীর চেয়ে পুরুষ কয়েক গুণ বেশি লিঙ্গ বৈষম্যের শিকার হয়। ১৩৪টি দেশের মধ্যে ৯১টি দেশে পুরুষ বেশি বৈষম্যের শিকার। বাকী ৪৩টি দেশে পিছিয়ে নারী। নারীর চেয়ে পুরুষ বেশি নির্যাতনের তালিকায় বাংলাদেশ ৭৩তম অবস্থানে।

যুক্তরাজ্যের ইউনিভার্সিটি অব এসেক্স এবং কলম্বিার ইউনিভার্সিট অব মিসৌরির পরিচালিত এক গবেষণায় এ তথ্য উঠে এসেছে। গবেষণাপত্রটি জার্নাল প্লস ওয়ান-এ প্রকাশ করা হয়েছে।

গবেষণায় বলা হয়েছে, লিঙ্গভিত্তিক কারণে বিভিন্নভাবে পুরুষকে হয়রানির শিকার হতে হয়। একই অপরাধ বা ঘটনার জন্য নারীকে কোনো শাস্তি পেতে হয় না, কিন্তু পুরুষকে কঠিন শাস্তি পেতে হয়। এছাড়া অনেক দেশে পুরুষদের শুধুমাত্র লৈঙ্গিক কারণে কঠোর সামরিক প্রশিক্ষণ নিতে হয়।

যুক্তরাজ্য, যুক্তরাষ্ট্র এবং অস্ট্রেলিয়ায় পুরুষ বৈষম্যের হার সবচেয়ে বেশি। আর নারীদের জন্য প্রতিকূল পরিবেশ সবচেয়ে বেশি ইটালি, ইসরাইল আর চায়নায়।

গবেষকরা লিঙ্গ বৈষম্য যাচাইয়ের জন্য নতুন ধরনের পদ্ধতি উদ্ভাবন করেছে। সেটির নাম দেয়া হয়েছে ‘বেসিক ইনডেক্স অব জেন্ডার ইনইকুয়ালিটি’ (বিআইজিআই)।

ইনডেক্সে লিঙ্গ বৈষম্যের দিক থেকে বাংলাদেশের অবস্থান ৭৩তম। শূন্যকে নিরপেক্ষ অবস্থান ধরে নির্ধারিত ইনডেক্সে বাংলাদেশে পয়েন্ট মাইনাস -০.০৩৮৯২৪। বাংলাদেশের নিকটতম বেশি লিঙ্গ বৈষম্যের দেশ রাশিয়া। আর নিকটতম কম বৈষম্যের দেশ ফিনল্যান্ড।