ভারত থেকে দুই দিনে সাড়ে ৩ হাজার মে.টন পেঁয়াজ আমদানি

সাতক্ষীরার ভোমরা স্থলবন্দর দিয়ে দুই দিনে ১৬৭ ট্রাকের মাধ্যমে ভারত থেকে ৩ হাজার ৬শ ৯২ মেট্রিক টন পেঁয়াজ আমদানি করা হয়েছে।

ভোমরা স্থলবন্দরের তথ্য কর্মকর্তা তারিকুল ইসলাম জানান, এ বন্দর দিয়ে রোববার (১৫ মার্চ) ৮৮ ট্রাক ও সোমবার (১৬ মার্চ) ৭৯ ট্রাক পেঁয়াজ এসেছে।

আমদানিকৃত প্রতি টন পেঁয়াজের মূল্য ৩শ ৫ মার্কিন ডলার বলে জানিয়েছেন ব্যবসায়ীরা।

এর মধ্যে পশ্চিমবঙ্গের পেঁয়াজ ২৭ থেকে ২৮ টাকা এবং মহারাস্ট্রের পেঁয়াজ ৩৫ থেকে ৩৬ টাকা পাইকারি দরে বিক্রি হয়েছে। অপরদিকে, সাতক্ষীরার বড়বাজারে দেশি পেঁয়াজ বিক্রি হচ্ছে ৩৫ টাকা থেকে ৪৫ টাকা পর্যন্ত।

ভোমরা সিঅ্যান্ডএফ এজেন্ট অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক মোস্তাফিজুর রহমান নাসিম জানান, ভারত সরকার পেঁয়াজ রপ্তানিতে নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করে নেওয়ায় গত দুইদিনে ভারতীয় পেঁয়াজ নিয়ে ১৬৭ ট্রাক ভোমরা বন্দরে প্রবেশ করেছে।

গত বছরের ২৯ সেপ্টেম্বর থেকে ভারত সরকার পেঁয়াজ রপ্তানি বন্ধ করে দেয়। সম্প্রতি ভারতে পেঁয়াজের উৎপাদন ভালো হওয়ায় ও সরবরাহ বাড়ার কারণে ২৬ ফেব্রুয়ারি পেঁয়াজ রপ্তানিতে নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করে নিয়ে ২ মার্চ এ সংক্রান্ত নির্দেশনা জারি করে। ভারত সরকার প্রথমে ১০ মার্চ থেকে পেঁয়াজ রপ্তানির ঘোষণা দিলেও পরে ১৫ মার্চ থেকে পেঁয়াজ রপ্তানি শুরু হয়।

মোস্তাফিজুর রহমান নাসিম বলেন, ‘কলকাতা থেকে দূরত্ব কম হওয়ায় পেঁয়াজ আমদানির সবচেয়ে বড় পয়েন্ট হচ্ছে ভোমরা স্থলবন্দর। এই বন্দরের অনেক ব্যবসায়ী আছে যারা শুধুমাত্র পেঁয়াজের আমদানি করে থাকেন। ভারত সরকার পেঁয়াজ রপ্তানিতে নিষেধাজ্ঞা দিয়ে তারা কিছুটা বিপাকে পড়েন। পেঁয়াজ আমদানি শুরুর সঙ্গে সঙ্গে বন্দরে কিছুটা কর্ম ব্যস্ততা বেড়েছে। পেঁয়াজ আমদানি শুরু সাথে সাথে বাংলাদেশ পেঁয়াজের দামও কমতে শুরু করেছে।’

সাতক্ষীরার ভোমরা শুল্ক স্টেশন কাস্টমসের সহকারী কমিশনার রেজাউল করিম বলেন, ‘ভারত সরকার পেঁয়াজ রপ্তানিতে নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহারের পরে সাতক্ষীরা ভোমরা বন্দর দিয়ে পেঁয়াজ আসা শুরু করে। প্রথম দিনে ভারত থেকে ৮৮টি ট্রাকে করে ১হাজার ৯শ ৩৮ মেট্রিক টন এবং দ্বিতীয় দিনে আরও ৭৯ ট্রাক করে ১হাজার ৭৫৪ মেট্রিক টন পেঁয়াজ আমদানি হয়েছে। গত দুইদিনে আমদানি হয়েছে ৩ হাজার ৬শ ৯২ মেট্রিক টন পেঁয়াজ।

উল্লেখ্য, গত বছরের ২৭ সেপ্টেম্বর ভারত সরকার অভ্যন্তরীণ সঙ্কটের কারণে পেঁয়াজ আমদানি বন্ধ ঘোষণা করে। এরপর দীর্ঘ সাড়ে ৫ মাস বন্ধ থাকার পর গত রোববার (১৫ মার্চ) থেকে আবারও পেঁয়াজ আমদানি শুরু হয়েছে।