মঙ্গলের মাটির নতুন ছবি পাঠাল ইউরোপিয়ান স্পেস অ্যাজেন্সি


ইউরোপিয়ান স্পেস অ্যাজেন্সির মার্স এক্সপ্রেস মঙ্গল গ্রহের একটি অংশের ছবি তুলে পাঠিয়েছে। জানা গেছে, ওই স্থানটি আসলে মঙ্গল গ্রহের ভূমির একটি অংশ।

উত্তর এবং দক্ষিণ গোলার্ধের সীমান্তের ওই অংশ পাথুরে এবং এবড়োথেবড়ো বলে জানা গেছে। এই মার্শিয়ান ল্যান্ডস্কেপের সাহায্যেই মঙ্গল গ্রহে ফ্লাড প্লেইনস তৈরি হয়েছিল একসময়।

উত্তর ও দক্ষিণ গোলার্ধের ঠিক সীমান্তের পাথুরে অঞ্চলটিকে নীল ফসি সাইট হিসেবেও উল্লেখ করা হয়। এই ফ্লাড প্লেইনসই ব্যাপক ইঙ্গিতবাহী বাঁক এই বিশেষ বিতর্কটিতে যে, মঙ্গল গ্রহে প্রাণের অস্তিত্ব আছে কি না।

তবে এর ফলে একটা ব্যাপার সহজে জানা যেতে পারে যে, বাতাস, পানি ও বরফের এই লাল গ্রহের একপ্রান্ত থেকে আরেকপ্রান্তে চলে যাওয়ার চিহ্নগুলো কী কী।

এই মুহূর্তে মঙ্গলের বড় পরিচয় হলো এটি অত্যন্ত শুকনো গ্রহ। কিন্তু বিভিন্ন ক্ষয়ের ফলে যে ফ্লাড প্লেইনসের মতো ভূমির নির্দিষ্ট আকার তৈরি হচ্ছে নীল ফসি সাইটে তাকে অত্যন্ত উল্লেখযোগ্য ঘটনা বলেই মনে করা হচ্ছে।