‘মিথ্যা তথ্য দিয়ে অঙ্গপ্রত্যঙ্গ সংযোজনে ২ বছরের জেল’

মিথ্যা তথ্য দিয়ে কেউ যদি অঙ্গপ্রত্যঙ্গ সংযোজন করেন তাহলে তাদের দুই বছরের জেল অথবা ৫ লাখ টাকা জরিমানা অথবা উভয় দণ্ডে দণ্ডিত করা হবে।

এমন বিধান রেখে মানবদেহে অঙ্গপ্রত্যঙ্গ সংযোজন (সংশোধন) আইন, ২০১৭ এর খসড়ার চূড়ান্ত অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা।

সোমবার দুপুরে সচিবালয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত মন্ত্রিসভার বৈঠকে এ অনুমোদন দেওয়া হয়।

বৈঠক শেষে দুপুরে মন্ত্রিপরিষদের অতিরিক্ত সচিব আশরাফ শামীম এ তথ্য জানান।

তিনি বলেন, ‘অঙ্গপ্রত্যঙ্গ বলতে চোখ, কিডনি, হৃদপিণ্ডসহ অন্যান্য অঙ্গ দান করা যাবে। আইনে বলা আছে, পিতা-মাতা, ভাই-বোন, পুত্র-কন্যাসহ অন্যান্য নিকট আত্মীয় এসব অঙ্গপ্রত্যঙ্গ দান করতে পারবেন। আইনে অপরাধের শাস্তি হিসেবে বলা হয়েছে, মিথ্যা তথ্য দিয়ে কেউ যদি অঙ্গপ্রত্যঙ্গ সংযোজন করেন তাদের দুই বছরের জেল অথবা ৫ লাখ টাকা জরিমানা অথবা উভয় দণ্ডে দণ্ডিত করা হবে।’

উল্লেখ্য, আগে এই আইন কেউ অমান্য করলে তাকে সাত বছরের জেল অথবা ৩ লাখ টাকা জরিমানা অথবা উভয় দণ্ডে দণ্ডিত করা হতো।