‘রাতেই ব্যালটে সিল’, ভোট স্থগিত, ৩ নির্বাচনী কর্মকর্তা আটক


ভোটের আগের রাতে ব্যালট পেপারে সিল মারার অভিযোগে সিরাজগঞ্জ সদর উপজেলার একটি কেন্দ্রের তিন নির্বাচনী কর্মকর্তাকে আটক করা হয়েছে। ওই কেন্দ্রের ভোট গ্রহণও স্থগিত করা হয়েছে বলে প্রশাসনের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে।

আজ রোববার সকালে সদর উপজেলা পরিষদের নির্বাচনের রিটার্নিং কর্মকর্তা আজিজার রহমান এনটিভি অনলাইনকে বলেন, ‘সকালে ভোট গ্রহণ শুরুর আগে তিন নির্বাচনী কর্মকর্তাকে আটক করা হয়েছে।

অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক ফিরোজ মাহমুদ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

আটকরা হলেন সিরাজগঞ্জ পৌর এলাকার ১ নম্বর ওয়ার্ডের মাহমুদপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রের প্রিসাইডিং অফিসার মো. আনোয়ার হোসেন, সহকারী প্রিসাইডিং অফিসার বেল্লাল হোসেন ও আলীম শেখ।

রিটার্নিং কর্মকর্তা আজিজার রহমান বলেন, ‘সেখানকার প্রিসাইডিং কর্মকর্তা আনোয়ার দাবি করেছেন, রাতে ব্যালট পেপারে ভোট মারা হচ্ছে, এটা বুঝতে পেরে তিনি এই কেন্দ্রের ভোট স্থগিত করেছেন। কিন্তু আমাদের ধারণা, তাঁর উপস্থিতিতে ব্যালটে ভোট মারা হয়েছে। তার মানে, এতে তাঁর যোগসাজশ থাকতে পারে। তাই তিনজনকেই আটক করা হয়েছে।’

আজ সকালে দেশের ১২ জেলার ৭৮ উপজেলায় ভোট গ্রহণ শুরু হয়েছে। এ নির্বাচনে মোট ভোটার এক কোটি ৪২ লাখ ৪৮ হাজার ৮৫০ জন। ভোটকেন্দ্র পাঁচ হাজার ৮৪৭টি। চেয়ারম্যান পদে ২০৭ জন, ভাইস চেয়ারম্যান ৩৮৬ জন ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ২৪৯ প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন।

উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের প্রথম ধাপে সিরাজগঞ্জে সাতটি উপজেলায় ভোট চলছে। এ জেলায় আটটি উপজেলার তফসিল ঘোষণা করা হলেও মামলা জটিলতার কারণে উল্লাপাড়া উপজেলার ভোট গ্রহণ স্থগিত রয়েছে। সকাল ৮টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত বিরতহীনভাবে ভোট গ্রহণ চলবে।

নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে মোট ১৫ জন, ভাইস চেয়ারম্যান পুরুষ পদে ৩১ জন ও নারী ভাইস চেয়ারম্যান পদে মোট ১৯ জন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। মোট ৭৪৭ কেন্দ্রে প্রায় ২০ লাখ নারী-পুরুষ তাঁদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করবেন।