সড়কে রাজীব-মীমের মৃত্যু, বিচারের রায় আজ

রাজধানীর শহীদ রমিজ উদ্দিন ক্যান্টনমেন্ট কলেজের শিক্ষার্থী রাজীব-মীমের সড়কে মৃত্যুর ঘটনায় দায়ের করা মামলার রায় হবে আজ। ২০১৮ সালের ২৯ জুলাই দুপুরে জাবালে নূর পরিবহনের দুটি গাড়ির চালক রেষারেষি করে চালানোর সময় সড়কের পাশে অপেক্ষমাণ দুই কলেজ শিক্ষার্থী দিয়া খানম মীম ও আবদুল করিম রাজীবকে পিষ্ট করে। এরপর বিচারের দাবিতে সড়কে নেমে আসে সারা দেশের লাখো শিক্ষার্থী। তাঁরা সড়ক আইন পরিবর্তনসহ বেশ কিছু দাবি জানিয়ে আন্দোলন গড়ে তোলে।

আজ রবিবার বেলা তিনটায় ঢাকার মহানগর দায়রা জজ কে এম ইমরুল কায়েশ এ মামলার রায় ঘোষণা করবেন।

গত ৭ অক্টোবর উভয়পক্ষের যুক্তিতর্ক উপস্থাপনের মাধ্যমে বিচারকাজ শেষ হয়। ওইদিনই আদালত এ মামলার রায়ের জন্য ১ ডিসেম্বর দিন ধার্য করেন।

এ মামলার মোট ছয় আসামির মধ্যে জাবালে নূর পরিবহনের মালিক জাহাঙ্গীর আলম, দুই চালক মাসুম বিল্লাহ ও জুবায়ের সুমন এবং তাদের সহকারী এনায়েত হোসেন কারাগারে রয়েছেন। জামিনে থাকা জাবালে নূর পরিবহনের আরেক মালিক শাহাদাত হোসেনের মামলা উচ্চ আদালতের নির্দেশে স্থগিত আছে। আরেক চালকের সহকারী কাজী আসাদ পলাতক রয়েছেন।

আসামিদের বিরুদ্ধে দণ্ডবিধির ২৭৯, ৩২৩, ৩২৫, ৩০৪ ও ৩৪ ধারায় অভিযোগ আনা হয়েছে। যার মধ্যে ৩০৪ ধারায় অপরাধজনক নরহত্যার অভিযোগে সর্বোচ্চ শাস্তি রয়েছে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড।

ঘটনার দিন রাতেই নিহত শিক্ষার্থী দিয়া খানমের বাবা জাহাঙ্গীর আলম বাদী হয়ে ক্যান্টনমেন্ট থানায় একটি মামলা করেন।